আশুলিয়া থানা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদককে বহিস্কার।

0
15

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়ায় বহিস্কার হয়েছেন আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ শামীম আহমেদ সুমন ভূঁইয়া।

আশুলিয়া ইয়ারপুর ইউনিয়নের উপনির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়ায় তাকে বহিস্কার করা হয়েছে বলে আজ মঙ্গলবার আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক মোহাম্মদ এনামুল মুন্সির স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানানো হয়।

অন‍্যদিকে সুমন আহাম্মেদ ভূঁইয়া তার জামগড়া নিজ বাস ভবনে মঙ্গলবার (১৩ ডিসেম্বর ) সংবাদ সম্মেলন করে দলীয় পদ থেকে অব্যাহতি চেয়েছেন। তিনি জানান,১০ ডিসেম্বর অব্যাহতি চেয়ে আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক বরাবর লিখিত আবেদন জমাদেন।অব‍্যহতি পত্রে অবব্যাহতির কারণ হিসেবে তিনি উল্লেখ করেন,তার বাবা প্রয়াত চেয়ারম্যান সৈয়দ আহমেদ ভূইয়ার মৃত্যু পর তিনি শারীরিক ও মানসিকভাবে বিপর্যস্ত। ফলে বর্তমানে তার পক্ষে দলীয় কার্যক্রম পরিচালনা করা সম্ভব নয়।

এদিকে সুমন আহাম্মেদ ভূঁইয়ার বহিষ্কারের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ইয়ারপুর ইউনিয়ন পরিষদের উপ-নির্বাচন ২০২২ এ আওয়ামী লীগের মনোনিত চেয়ারম্যান প্রার্থীর বিরুদ্ধে আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সুমন আহাম্মেদ ভূঁইয়া বিদ্রোহী প্রার্থী হয়ে দলীয় নিয়ম শৃঙ্খলা ভঙ্গ করেছে। তাই বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের মৌখিক এবং জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের পরামর্শে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের গঠনতন্ত্রের ৪৭ (১১) ধারা মোতাবেক তাকে আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

সুমন আহাম্মেদ ভূঁইয়ার অব্যাহতির ব‍্যপারে জানতে আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক মোহাম্মদ এনামুল মুন্সি বলেন, দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে ৪৭ এর (১১) ধারা মোতাবেক আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সুমন আহম্মেদ ভূঁইয়াকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

অব্যাহতি পত্র গ্রহণের পরে কেন বহিষ্কার? এমন প্রশ্নের জবাবে দপ্তর সম্পাদক বলেন, অব্যাহতিপত্র আমি গ্রহণ করেছি গ্রহণ ঠিক। তবে দল তার আবেদনপত্র গ্রহণ করেননি। দল তাকে বহিষ্কার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তাই তাকে বহিষ্কার করা হয়েছে।