সাধারণ থেকে অসাধারণ হয়ে ওঠার গল্প।

0
9
খোরশেদ আলম
রূপগঞ্জ,নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:
“মানুষ তার স্বপ্নের সমান বড়” এ কথাটি বলে গিয়েছেন বিভিন্ন কবি সাহিত্যিক গন। কিন্তু সেই স্বপ্নকে বাস্তবে রূপ দিতে পারে কজন। কথায় আছে যদি লক্ষ্য থাকে অটুট তাহলে যে কোন স্বাধ্য সাধন করা সম্ভব।বলছি তেমনি একজন মহিউসী নারীর কথা ।

আর পাঁচটা মেয়ের মতোই বেড়ে উঠছিলো মেয়েটি।মায়ের যত্ন,বাবার ভালোবাসা,আপুর স্নেহ নিয়েই বেড়ে উঠছিল মেয়েটি।ছাত্রী হিসেবে যেমন মেধাবী ঠিক তেমনি সকল নতুন নতুন কাজ সম্পর্কে জানার আগ্রহ টা তার বেশি ছিল।ছোট বেলা ইচ্ছে ছিলো ইঞ্জিনিয়ার হবেন।সবকিছু খুব ভালো চলছিলো। হঠাত করেই মা অসুস্থ হয়ে গেলেন।শুরু হলো মেয়েটির জীবনে কালো অধ্যায়।মেয়েটি যখন নবম শ্রেণিতে পড়ে তখন মাকে হারালো। একটি মেয়ের যখন মায়ের দরকার সবচেয়ে বেশি সেই সময় মাকে হারিয়েছেন।  শুরু হয় মেয়েটির জীবনের কালো অধ্যায়। কিন্তু জীবন সংগ্রামে সে হেরে জায়নি।তার জীবনে চড়াই উৎরাই  পারি দিয়ে।সব জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে নিজের সাথে এবং সমাজের সাথে যুদ্ধ করে আজ সে প্রতিষ্ঠিত।যে মেয়েটি নিজের দায়িত্ব নিতে পারতো না আজ সে দেশ ও জাতির দায়িত্ব নিচ্ছে তার চিকিৎসার মাধ্যমে। আজ সে সুপরিচিত পুস্টিবিদ।রোগী দেখার পাশাপাশি সমানতালে বিভিন্ন টিভি প্রোগ্রামে সমানতালে সঞ্চালিকা হিসেবে কাজ করে যাচ্ছে। বলছি দিপ্ত টেলিভিশনে আলোক হেলথকেয়ার এন্ড হাস্পাতালের সৌজন্যে পুস্টিবিষয়ক সচেতনতামুলক অনুষ্ঠানে নিয়মিত সঞ্চালিকা হিসেবে দায়িত্ব পালন করে নিজেকে প্রমাণ করে যাচ্ছে প্রতিনিয়ত। বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন পত্রিকায় সাস্থ্য বিষয়ক পরামর্শ লিখেন।বিভিন্ন সময় ফ্রি রোগী দেখে এবং ফ্রি ডায়েট চাট প্রদানের মাধ্যমে হয়ে উঠেছেন সাধারণ মানুষের মধ্যমণি। মেয়েটি আর কেউ না পুস্টিবিদ “রুবাইয়া পারভীন রিতি”।মায়ের সপ্নকে বাস্তবায়িত করার জন্য সেক্রিফাইজ করেছে নিজের ভালো লাগা গুলো। তার এই পথ চলা খুব একটা সহজ ছিলো না।অক্টোবর এর ৮ তারিখে জন্মদিন তার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here