শেরপুরে পৌর কমিশনারের নির্দেশে কাটা হলো সড়কের গাছ:জানেনা পৌর কর্তৃপক্ষ।

0
23

এ জেড হীরা

শেরপুর (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ

বগুড়ার শেরপুর পৌর শহরের ৩ নং ওয়ার্ডের পূর্ব ঘোষপাড়া এলাকায় কমিশনার নিমাই ঘোষের নির্দেশে পৌরসভার কাচা রাস্তার ইউক্যালিপ্টাস গাছ কর্তনের  চলছে মহোৎসব। ১১ জুলাই রোববার সকাল থেকে চলছে  গাছ কর্তন চললেও  পৌর কর্তৃপক্ষ এ বিষয়ে কিছুই জানেন না বলে জানান গনমাধ‍্যমকে ।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, পৌর শহরের পূর্ব ঘোষপাড়া এলাকার মৃত সুধীর পোদ্দারের ছেলে নারু পোদ্দার বিশালাকৃতির প্রায় ৪০ হাজার টাকা মুল্যের ৫ টি ইউক্যালিপ্টাস গাছ কাটছে। খুব দ্রুত গাছগুলো কেটে সরিয়ে ফেলতে  সেখানে নিয়োজিত  আছেন ৬জন দিনমজুরী শ্রমিক।

পৌরসভার বিনা টেন্ডারে কাটা হচ্ছে এসব সরকারি রাস্তার  গাছ গুলো।
 জানাযায় বহুদিন পুর্বে ওই  কমিশনার নিমাই ঘোষ গাছগুলো লাগিয়েছিল তাই তিনি কাটতে বলেছেন বলে দাবি করেন নারু পোদ্দার।
এলাকাবাসীরা বলেন, এই রাস্তার উন্নয়নমূলক কাজ করার কারণে রাস্তার গাছগুলো এভাবে কাটার জন্য বলেছেন কমিশনার নিমাই ঘোষ। তাছাড়া পৌরসভার কেউই এই রাস্তা দেখতে আসেনি বা গাছগুলো কাটার তদারকি করেনি ।
এ ব্যাপারে নারু পোদ্দার বলেন, কমিশনার নিমাই ঘোষ এই গাছগুলো লাগিয়েছিলেন। তাই তিনি আমাকে গাছগুলো কাটতে বলেছেন নিতে বলেছেন তাই কাটছি । গাছ গুলো কত দামে কিনেছেন  এব‍্যাপারে  ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি বলেন কমিশনার দামের কথা বলতে নিষেধ করেছেন তাকে ।
এ ব্যাপারে কাউন্সিলর নিমাই ঘোষ সাংবাদিকদের বলেন, গাছগুলো পৌরসভার নয়। সড়কের পাশে আমার সহ অন্যান্য ব্যাক্তির জায়গা রয়েছে। তাই নারু পোদ্দার কে ওই গাছগুলো কেটে নেয়ার জন্য মৌখিকভাবে বলেছি।
এ প্রসঙ্গে পৌরসভার উপ সহকারী প্রকৌশলী মো. হুমায়ুন কবীর বলেন, কোন রাস্তার গাছ কাটা সম্পর্কে আমার জানা নেই। এছাড়া এ ব্যাপারে কোন মিটিংও করা হয়নি। রাস্তা নির্মান বা মেরামতের বিষয়েও কোন আলোচনা হয়নি।
এ ব্যাপারে পৌরসভার মেয়র আলহাজ  জানে আলম খোকা বলেন, শহরের পুর্ব ঘোষপাড়া এলাকায় কিসের গাছ কাটা হয়েছে তা আমার জানা নেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here