কালীগঞ্জের স্বর্ণ শিল্পীরা মানবতার জীবনযাপন করছে,সরকারের কাছে প্রণদনা দাবি।

0
23
আব্দুস সালাম (জয়)
ঝিনাইদহ কালীগঞ্জ:
ঝিনাইদহ কালীগঞ্জের স্বর্ণশিল্পীরা মহামারি করোনা ভাইরাস সংক্রমণ, লকডাউনে দিশেহারা। করোনা ভাইরাস লকডাউনের জন্য  দোকানপাট বন্ধ থাকায় অসহায়ের মত বাড়িতে বসে আছে সবাই,যার কারণে স্বর্ণশিল্পীরা কর্মহীন জীবন যাপন করছেন। আর যদিও কোন কারিগরের হাতে সামান্য কাজ থেকে থাকে লকডাউনের কারণে দোকানে গিয়ে কাজ করতে পারছেন না। স্বর্ণশিল্পীদের মাঝে বিষণ্ণতার ছায়া নেমে এসেছে। যার কারণে স্বর্ণশিল্পীদের পরিবার পরিজন নিয়ে খুবই সঙ্কটাপন্ন অবস্থায় আছে। লকডাউনের কারণে এবারের ঈদে তাদের পরিবারের সদস্যদের পোশাকও কিনে দিতে পারবে কিনা তারও কোন নিশ্চয়তা নেই। ২০২০ সালে প্রথম করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ আরম্ভ হওয়ার পর থেকে পরিবার পরিজন নিয়ে খুবই কষ্টের মধ্য দিয়ে চলতে ছিলো কালীগঞ্জের  স্বর্ণশিল্পীদের।
এমনিতেই দীর্ঘদিন কর্ম না-থাকার কারণে বসে রয়েছেন কর্মস্থলে, এর মাঝে আবার ১৪ই এপ্রিল ২০২১ আবারও করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ধাপ লকডাউন ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ সরকার এখন  স্বর্ণশিল্পীরা কি করে বাঁচবে? প্রথম লকডাউনের পর থেকে এখন পর্যন্ত তেমন কোন কাজ জোটেনি। হাতে জমানো সামান্য কিছু টাকা ছিল, তা দিয়েই কোনমতে সংসার চালাতে হচ্ছে। এখন হাতে আর কোন টাকা পয়সাও নেই।
০৭/০৭/২০২১ বুধবার বিকালের দিকে এক স্বর্ণশিল্পী বলেন দীর্ঘদিন কাজকর্ম না থাকাতে বাড়িতে বসে থেকে মনটা এমনই দুরবস্থা হয়েছে যে বাঁচার আর কোন ইচ্ছে নেই! তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি আপনি  স্বর্ণশিল্পীদের বাঁচান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here